মুন্সীগঞ্জের গজারিয়ায় উপজেলা ছাত্রদলের আহ্বায়ক কমিটি অপসারণে সংবাদ সম্মেলন

0

নিজস্ব প্রতিবেদক (মুন্সীগঞ্জ নিউজ টুয়েন্টিফোর ডট নেট) ঃ মুন্সীগঞ্জের গজারিয়ায় শনিবার বিকালে ভবেরচর বাস স্ট্যান্ড মোহাম্মদ আলী প্রধান প্লাজায় উপজেলা ছাত্রদলের সদ্যঘোষিত আহ্বায়ক কমিটির বিতর্কিতদের অপসারণের দাবিতে সংবাদ সম্মেলন করেছে উপজেলা ছাত্রদল।

উপজেলা ছাত্রদলের আয়োজনে এ সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন,উপজেলা ছাত্রদলের সাবেক সভাপতি মাহাদী ইসলাম বাবু, সাবেক সাধারণ সম্পাদক মোঃ বিল্লাল হোসেন,সাবেক সহ-সভাপতি শাজাহান বাবুল, সাবেক সহ-সভাপতি শাহ আলম, বালুয়াকান্দি ইউনিয়ন ছাত্রদলের সভাপতি ফুয়াদ মৃধা, বাউশিয়া ইউনিয়ন ছাত্রদলের সাধারণ সম্পাদক কাউসার সরকার,টেংগারচর ইউনিয়ন ছাত্রদলের সিনিয়র সহ-সভাপতি মঈন উদ্দিন সরকার মিশু ও বালুয়াকান্দি ইউনিয়ন ছাত্রদল নেতা কামরুজ্জামান সানি।

উপজেলা ছাত্রদলের সাবেক সভাপতি মাহাদী ইসলাম বাবু বলেন, সদ্য ঘোষিত কমিটিতে মিজানুর রহমান নামে বিতর্কিত একজনকে আহ্বায়ক করা হয়েছে। মিজানুর রহমান কোনদিন আন্দোলন সংগ্রামে তাদের পাশে ছিলেন না। আহ্বায়ক কমিটি গঠনের উদ্দেশ্যে যখন সিভি চাওয়া হয় সেখানে মিজান নিজেকে টেংগারচর ইউনিয়ন ছাত্রদলের সাবেক সহ-সভাপতি ও গজারিয়া উপজেলা ছাত্রদলের সাবেক যুগ্ম সাংগঠনিক সম্পাদক বলে দাবি করেন যা একেবারে মিথ্যা। মিথ্যা তথ্য দিয়ে কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দকে বিভ্রান্ত করার অপরাধে যেখানে তার বহিষ্কার হওয়া উচিত ছিল সেখানে কমিটিতে তার গুরুত্বপূর্ণ পদ পাওয়া তাদের সবাইকে অবাক করেছে। কমিটির যুগ্ম আহ্বায়ক শাহীন মাজহারুল ও সদস্য রাজিব মিয়া এসএসসি পাস করেনি বলে জানান তিনি। অনতিবিলম্বে আহবায়ক কমিটির বিতর্কিতদের অপসারণ করে ত্যাগী নেতাকর্মীদের মূল্যায়ন করতে কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দের প্রতি আহ্বান জানান তিনি অন্যথায় সকল নেতাকর্মীদের সাথে নিয়ে কঠোর আন্দোলনের ডাক দেওয়া হবে বলে হুঁশিয়ার করে দেন তিনি।

সদ্য ঘোষিত আহ্বায়ক কমিটির বিষয়ে জানতে উপজেলা বিএনপির সভাপতি সৈয়দ সিদ্দিকুল্লাহ ফরিদের সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি জানান, সাংগঠনিকভাবে বিএনপিকে দুর্বল করার অপচেষ্টা চলছে তার অংশ হিসাবে উপজেলা ছাত্রদলের আহবায়ক কমিটিতে বিতর্কিত কয়েকজনকে স্থান দেওয়া হয়েছে।

উপজেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক ইসহাক আলী জানান, দীর্ঘদিন ধরে আমি গজারিয়া উপজেলা বিএনপির রাজনীতির সাথে যুক্ত তবে সদ্যঘোষিত কমিটিতে যাকে আহ্বায়ক করা হয়েছে আমি কখনো তাকে দেখিনি।

Print Friendly, PDF & Email

উত্তর দিন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.