৪ জনকে ৭দিনের জেল ও ১জনকে জরিমানা

গজারিয়ায় জেল-জরিমানা করে ও বন্ধ করা যাচ্ছে না ইলিশ নিধন ..

0

মোয়াজ্জেম হোসেন ##  মুন্সীগঞ্জে গজারিয়ায় জেল-জরিমানা করেও বন্ধ করা যাচ্ছে না ইলিশ নিধন। প্রতিদিন ও রাতে উপজেলার মোহনা মেঘনা নদী থেকে ইলিশ শিকারে জেল জরিমানা করছে উপজেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে। বুধবার (২৩অক্টোবর) দুপুরে গজারিয়া উপজেলার রঘুরচর এলাকার মোহনা মেঘনা নদীতে অভিযান পরিচালনা করে ৪ জনকে ১লাখ মিটার কারেন্ট জাল, ট্রলার, ইলিশ মাছসহ আটক করা হয়।

নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে মাছ ধরার অপরাধে উপজেলার হোসেন্দী ইউনিয়নের রঘুরচর গ্রামে মো. নজরুল ইসলাম(৪৫), মাহমুদ হোসেন(৩৩), মো. ইয়াসিন মিয়া(১৯), মো. মোফাজ্জল হোসেন(২৮), মো. ইসমাইল(২৪) মৎস্য রক্ষা ও সংরক্ষণ আইনে ৭দিন করে তাদের কারাদণ্ড প্রদান করা হয়েছে।

গজারিয়া উপজেলার নির্বাহী অফিসার (নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট) মো. হাসান সাদী আটককৃতদের সাজা প্রদান করেন।

অভিযানের সময় প্রায় এক লাখ মিটার কারেন্ট জাল জব্দ করা হয়েছে। জব্দকৃত কারেন্ট জাল ধ্বংস করা হয়েছে।  মাছ ধরার ট্রলার দুটি কোস্টগার্ড পুলিশ হেফাজতে। জব্দকৃত ইলিশ মাছ বালুয়াকান্দি ইউনিয়নের মইনিয়া রহমানিয়া মাদ্রাসায় বিতরণ করা হয়েছে।

অভিযান পরিচালনাকারী উপজেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট হাসান সাদীকে অভিযানে সহযোগিতা করেন গজারিয়া উপজেলা মৎস্য অফিসার আসলাম হোসেন শেখ, গজারিয়া কোস্টগার্ড ইনচার্জ (এসইপিও) মো: ইয়াহিয়া।

এসময় উপজেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট হাসান সাদী মুন্সীগঞ্জ নিউজ ২৪.নেটকে বলেন, যেহেতু আটককৃত জেলেরা সরকারি আইন ও প্রজ্ঞাপন অমান্য করে ইলিশ নিধন করছিলো তাই দন্ডবিধির ১৮৮ ধারা মোতাবেক চার জনকে ৭দিনের জেল ও ১জনকে ১৯৫০/৪ ধারা বঙ্গ করায় ৫হাজার টাকা জরিমানা করে ছেড়ে দেয়া হয় এবং সাজাপ্রাপ্ত আটককৃত জেলেদের মুন্সীগঞ্জ জেল হাজতে প্রেরন করা হয়।

 

Print Friendly, PDF & Email

উত্তর দিন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.